ফেনীতে সরকারি বরাদ্দ বাতিল হওয়ায় মহিলা নেত্রী ও ইউপি সদস্যের উপর হামলা

আফতাব উদ্দিনঃ
ফেনী শহরের ২ নং পাঁচগাছিয়া ইউনিয়নের নগরকান্দি গ্রামের ৪,৫,৬ নং ওয়ার্ডের মহিলা ইউপি সদস্য শিরিন আক্তার সরকার ঘোষিত ২৫০০/- অনুদানের তার ওয়ার্ডের ১০০ জনের একটি নামের তালিকা জমা দিলে সেখান থেকে একেই নাম্বার ব্যবহার করে একাধিক আইডি কার্ড জমা দেওয়ায় তাদের বরাদ্দ বাতিল হয় এবং বাকিদের তালিকা সচ্ছ হওয়ায় তাদের অনেকেই অনুদানটি পায়।বাতিল হওয়ার মধ্যে মিজানুর রহমান,পিতা- আব্দুল জব্বার,বাপ্পি, পিতা-বাবলু,রুপা, স্বামী-মিজানুর রহমান।

তাদের সরকারি বরাদ্দ বাতিল হওয়ায় তারা ইউপি সদস্য ও সদর আওয়ামীলীগের প্রচার সম্পাদিকা শিরিন আক্তারকে দোষারোপ করে গত ০৭/০৮/২০২০ ইং রোজ বুধবার দুপুরে সকলে মিলে তার উপর ঝাপিয়ে পড়ে তাকে কিল,ঘুষি ও লাথি মেরে অর্তকিত হামলা করতে থাকে এবং তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে লাঠিয়ে দিয়ে এলোপাতাড়িভাবে মাথায় আঘাত করতে থাকে।এরপর একপর্যায় তার ভাই সুমন তাকে বাঁচাতে এগিয়ে অাসলে তাকেও হত্যার উদ্দেশ্যে লাঠিয়ে দিয়ে এলোপাতাড়ি মেরে জখম করে।তারপর বাপ্পি ইউপি সদস্য শিরিনের কাপড় নিয়ে টানা হেছড়া করে তাকে শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে এবং এব্যাপারে কোন প্রকার মুখ খুললে তাকে ও তার পরিবারকে মেরে লাশ গুম করার হুমকি দেয়।

ইউপি সদস্য ও তার ভাই সুমনকে তার পরিবারের অন্য সদস্যরা হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করায়।এ ব্যাপারে ইউপি সদস্য শিরিন থানায় হাজির হয়ে তাদের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দায়ের করে।

জানা যায়,সন্ত্রাসী মিজান মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত এবং তার কারণে এলাকা কিশোর ও যুবক শ্রেণীর সকলে মাদক সেবনের সাথে জড়িয়ে পড়ছে এতে করে এলাকা ও সমাজের ক্ষতি হচ্ছে।